কারা হেফাজতে মারা গেলেন টাঙ্গাইলের আ’লীগ নেতা ফারুক হত্যার আসামি

প্রকাশিত: ৮:০৮ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১, ২০২১

কারা হেফাজতে মারা গেলেন টাঙ্গাইলের আ’লীগ নেতা ফারুক হত্যার আসামি

জাগো সখীপুর ডেস্কঃ টাঙ্গাইলে আওয়ামী লীগ নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদ হত্যা মামলার আসামি আনিসুল ইসলাম রাজা (৪২) কারা হেফাজতে চিকিৎসাধীন মৃত্যুবরণ করেছেন।

মঙ্গলবার রাতে ঢাকার মিডফোর্ট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন তার মৃত্যু হয়।

আনিসুল ইসলাম রাজা টাঙ্গাইল শহরের কলেজপাড়া এলাকার আমিনুল ইসলাম মোতালেবের ছেলে।

টাঙ্গাইলের জেল সুপার আব্দুল্লাহ আল মামুন এ খবর নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, রাজা ফারুক হত্যা মামলায় গ্রেফতারের পর ২০১৪ সালের আগস্ট থেকে টাঙ্গাইল কারাগারে ছিলেন আনিসুল ইসলাম রাজা। গত আগস্টের মাঝামাঝি রাজার পেট ফুলে যায়। প্রথমে কারাগারের চিকিৎসক এবং পরে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে তার চিকিৎসা করানো হয়।

জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসকরা উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকায় পাঠানোর পরামর্শ দেয়। পরে গত ১৮ আগস্ট তাকে ঢাকার কেরানীগঞ্জ কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়। ওই কারাগারের হেফাজতে তাকে মিডফোর্ট হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল।

 

রাজাকে ২০১৪ সালের ১৪ আগস্ট গোয়েন্দা পুলিশ ফারুক আহমেদ হত্যা মামলায় গ্রেফতার করে। দুই দফা রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদের পর তিনি এই হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেন। তার স্বীকারোক্তিতেই এই হত্যার সঙ্গে তৎকালিন এমপি আমানুর রহমান খান ওরফে রানা এবং তার ভাইদের সম্পৃক্ততার বিষয়টি বের হয়ে আসে।

 

প্রসঙ্গত ২০১৩ সালের ১৮ জানুয়ারি ফারুক আহমদের গুলিবিদ্ধ লাশ তার কলেজপাড়া এলাকার বাসার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়। ঘটনার তিন দিন পর তার স্ত্রী নাহার আহমেদ বাদী হয়ে টাঙ্গাইল সদর থানায় অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করে হত্যা মামলা করেন।